দিনাজপুরে যুবকের ক্ষত-বিক্ষত মরদেহ উদ্ধার

স্টাফ রিপোর্টার, দিনাজপুর : দিনাজপুরে মোহন মন্ডল (২৩) নামে এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মৃত যুবকের মুখের ডানদিকের অংশ থেতলে দেয়া ছিল। বুধবার সকালে শহরের মাতাসাগর নামক পুকুরের উত্তর-পশ্চিম পাড় থেকে ওই যুবকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। তার বিরুদ্ধে একাধিক মামলা রয়েছে বলে পুলিশ জানায়।

মৃত মোহন মন্ডল দিনাজপুর শহরের রাজবাটির গুঞ্জাবাড়ী মাস্টারপাড়া এলাকার রতন মন্ডলের ছেলে। সে বাসের হেলপার হিসেবে কাজ করে বলে তার পরিবার জানায়।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, বুধবার সকালে শহরের মাতাসাগরের উত্তর-পশ্চিম পাড়ে একটি মরদেহ দেখতে পেয়ে স্থানীয় লোকজন পুলিশকে খবর দেয়। পুলিশ এসে সুরতহাল প্রতিবেদন শেষে মরদেহ উদ্ধার করে এম আব্দুর রহিম মেডিক্যাল কলেজ মর্গে পাঠায়। নিহতের বড় ভাই মিলন মন্ডল বলেন, মঙ্গলবার বিকালে আমার সঙ্গে মোহনের শেষ দেখা হয়। সে বাড়ি থেকে বের হওয়ার আগে ঘরের দেয়ালে আটকানো পোস্টার, ফ্যানের ছবি তোলে। বের হওয়ার আগে আমার কাছ থেকে ৫০ টাকা নিয়ে যায়। রাতে আর বাড়িতে ফেরে না। সকালে স্থানীয় লোকজনদের মাধ্যমে মাতাসাগরের পাড়ে পরিত্যক্ত অবস্থায় একটি মরদেহ পড়ে থাকার খবর পাই। ঘটনাস্থলে গিয়ে মরদেহ শনাক্ত করি। মোহন প্রায়ই রাতে বাড়িতে ফিরতো না। সে বাসের হেলপার হিসেবে কর্মরত ছিল।

কোতয়ালী থানার ওসি মোজাফ্ফর হোসেন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, এলাকাবাসী ওই এলাকায় যুবকের মরদেহ পড়ে থাকার কথা জানায়। খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য এম. আব্দুর রহিম মেডিক্যাল হাসপাতালে পাঠায়। তিনি বলেন, নিহত মোহন মন্ডলের বিরুদ্ধে থানায় একধিক মামলা রয়েছে। একই সঙ্গে সে একজন মাদকসেবী এবং ছিনতাইকারী বলেও অভিযোগ রয়েছে।