পীরগঞ্জে গৃহবধূকে দলবদ্ধভাবে ধর্ষণ, গ্রেফতার ৪

পীরগঞ্জে (রংপুর) প্রতিনিধি : রংপুরের পীরগঞ্জে এক গৃহবধূকে দলবদ্ধভাবে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় চার জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। শুক্রবার (৪ জুন) বিকালে তাদের কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

এর আগে বৃহস্পতিবার (৩ জুন) রাতে উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পীরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সরেস চন্দ্র বর্মন।

পুলিশ জানায়, উপজেলার বড় আলমপুর ইউনিয়নের এক গৃহবধূর স্বামীর সঙ্গে একই এলাকার রনির বন্ধুত্ব হয়। এ সুযোগে রনি তাদের বাড়িতে যাতায়াত করতো। গত ২৩ মে স্বামী বাড়িতে না থাকার সুযোগে গৃহবধূকে ধর্ষণ করে রনি। পরদিন গৃহবধূকে ভয়ভীতি দেখিয়ে বাড়ির অদূরে আমবাগানে নিয়ে রনি ও তার তিন বন্ধু আল আমিন, মামুন ও আফসারুল ধর্ষণ করে। এতে গৃহবধূ গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েন। পরে তাকে পীরগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। এ ঘটনায় থানায় মামলা করেন গৃহবধূর স্বামী।

ওসি সরেস চন্দ্র বর্মন বলেন, মামলার পর অভিযান চালিয়ে চার জনকে গ্রেফতার করা হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ধর্ষণের কথা স্বীকার করেছে তারা। অপরদিকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য গৃহবধূকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ভিকটিম সাপোর্ট সেন্টারে পাঠানো হয়েছে।

গ্রেফতার চার জনকে শুক্রবার বিকালে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে বলে জানিয়েছেন রংপুর কোর্ট পুলিশের উপ-পরিদর্শক (সিএসআই) মনোয়ার হোসেন।