দিনাজপুরে ক্ষতিপুরণের দাবিতে কৃষকের মানববন্ধন

পার্বতীপুর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি : দিনাজপুরের পার্বতীপুরে ইটভাটার বিষাক্ত ধোয়ায় ফসলের ব্যাপক ক্ষতি হচ্ছে। এই ক্ষতিপুরণের দাবিতে মানববন্ধন করেছে ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকরা। এ সময় কৃষকেরা দাবি জানায়, জুনের মধ্যে ক্ষতিগ্রস্থ কৃষকদের ন্যায্য ক্ষতিপূরণ দেয়া না হলে, বৃহত্তর কর্মসূচি দেয়া হবে বলে ঘোষণা দেন ‘কৃষক সংগ্রাম’ পরিষদের আহবায়ক আজিজুর রহমান।

সোমবার (৩১ মে) বেলা ১১টা থেকে ১২টা পর্যন্ত পার্বতীপুর উপজেলার হামিদপুর ইউনিয়নের দক্ষিণ পলাশবাড়ি ভাটারমোড় নামক এলাকায় ঘন্টাব্যাপী এই মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেন ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকরা।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, এক ইউনিয়নে ১৯ ইটভাটার কারণে ৩শ’ একর জমির আম ও ধানসহ ৩০ প্রকার ফসল নষ্ট হয়ে গেছে। এর প্রতিকার চেয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রবাবর গত ২৩ মে ৩শ’ কৃষকের স্বাক্ষরিত স্মারকলিপি পেশ করা হয়। কিন্তু প্রশাসন শুধুই আশ্বাসই দিয়েছেন। কোন প্রকার ব্যবস্থাগ্রহণ করেন’নি। তারা আরও বলেন, এই ইটভাটার কারণে দিন দিন কৃষকরা নিঃস্ব হয়ে পড়ছে। ইটভাটার বিষাক্ত ধোয়ার কারণে বিভিন্ন ফসলের ক্ষয়ক্ষতিসহ শারীরিক সমস্যা দেখা দিচ্ছে। আগামীতে যেন এ ধরণের সমস্যার মুখে পড়তে না হয়, সেজন্য সরকারের কাছে অবৈধ ইটভাটাগুলো বন্ধের দাবি জানাচ্ছি।

ইটভাটার বিষাক্ত গ্যাসে ক্ষতিগ্রস্ত কৃষক সংগ্রাম পরিষদের আহবায়ক আজিজুর রহমানের সভাপতিত্বে মানববন্ধন চলাকালে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশের ইউনাইটেড কমিউনিস্ট লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক মোশাররফ হোসেন নান্নু, দিনাজপুর শাখার সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার আলী সরকার, দিনাজপুর শাখা বাংলাদেশ কৃষক ক্ষেত মজুর সমিতির সভাপতি আখতার আজিজ, সাংগঠনিক সম্পাদক ও ইটভাটার বিষাক্ত গ্যাসে ক্ষতিগ্রস্ত কৃষক সংগ্রাম পরিষদের উপদেষ্টা সঞ্জিত প্রসাদ জিতু, নীলফামারী শাখা বাংলাদেশ কৃষক ক্ষেত মজুর সমিতির নেতা শফিকুল আলম, মনিরুজ্জামান মনির প্রমুখ।

ইটভাটার ক্ষতিকর ধোয়ার কারণে ফসলে ক্ষতি হচ্ছে, সাথে নিঃস্থ হচ্ছে কৃষক। এ বিষয়ে পার্বতীপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নাসিদ কায়সার রিয়াদ-এর কাছে জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেন, প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণে জন্য উর্ধতন কর্মকর্তাকে জানানো হয়েছে। তদন্ত করে ইটভাটারগুলোর বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।