সড়ক সংস্কার কাজের গর্তের মাটি ধসে ৩ শিশু নিহত

গাইবান্ধা প্রতিনিধি : গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলায় সড়ক সংস্কারের গর্তের মাটি ধসে চাপা পড়ে দুই ভাইসহ তিন শিশু নিহত হয়েছে। শুক্রবার (১৯ মার্চ) বিকালে সুন্দরগঞ্জ উপজেলার বেলকা ইউনিয়নের কিশামত সদর গ্রামে এই ঘটনা ঘটে। এ তথ্য নিশ্চিত করেন সুন্দরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল্লাহিল জামান।

নিহত শিশুরা হলো– আব্দুল আলী (৭) ও তার ছোট ভাই আবির আলী (৪), তাদের ফুপাতো ভাই রিফাত মিয়া (৩)। নিহত আব্দুল আলী ও আবির আলী ওই গ্রামের মাসুদ মিয়ার ছেলে। রিফাত মিয়া একই গ্রামের শফিকুল ইসলামের ছেলে।

স্থানীয়রা জানান, কিশামত সদর গ্রামের একটি সড়ক সংস্কারের কাজ চলছে। কয়েকদিন আগে সড়কের পাশের মাটি খননযন্ত্র (ভেকু) মেশিন দিয়ে কেটে নেওয়ায় গভীর গর্তের সৃষ্টি হয়। শুক্রবার বিকালে ওই গর্তের পাশে খেলা করছিল তিন শিশু। এ সময় হঠাৎ করে গর্তের মাটি ধসে চাপা পড়ে তিন শিশু। তাৎক্ষণিক আশপাশের লোকজন মাটি সরিয়ে তিন শিশুকে মৃত অবস্থায় উদ্ধার করেন।

ওসি জানান, মাটিচাপায় দুই ভাইসহ তিন শিশুর মৃত্যুর খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়। খেলতে গিয়ে অসাবধানতায় ওই তিন শিশু সড়কের পাশের গর্তে পড়ে যায়। এতে মাটিচাপায় ঘটনাস্থলেই তাদের মৃত্যু হয়। ঘটনাটি গুরুত্ব দিয়ে তদন্ত করার কথাও জানান তিনি।

এদিকে, একই সঙ্গে মাটিচাপায় তিন শিশুর মৃত্যুর ঘটনায় স্বজন ও এলাকাবাসীর মধ্যে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। নিহত তিন শিশুর স্বজনদের অভিযোগ, অপরিকল্পিতভাবে ভেকু মেশিন দিয়ে মাটি কাটায় সড়কের পাশে গভীর গর্তের সৃষ্টি হয়। অথচ গর্তে কোনও সর্তকবার্তা দেয়নি সড়ক সংস্কার কাজে নিয়োজিত ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান। এ কারণে গর্তের মাটি ধসে চাপা পড়ে তিন শিশুর মৃত্যুর ঘটনায় ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের অবহেলাকে দায়ী করছেন তারা। এ ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত করে দায়ীদের বিরুদ্ধে কঠোর শাস্তির দাবি করেন তারা।