আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ন্ত্রণে যুক্তরাষ্ট্রে দুটি বিল পাস

মিরর ডেস্ক : যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিনিধি পরিষদ আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ন্ত্রণে বৃহস্পতিবার দুইটি বিলে অনুমোদন দিয়েছে। খবর রয়টার্সের।

ডেমোক্র্যাট নেতৃত্বাধীন পরিষদে প্রথম বিলটি ২২৭-২০৩ ভোটে পাস হয়। এই বিলের ফলে যারা ইন্টারনেট, আগ্নেয়াস্ত্রের প্রদর্শনী অথবা নির্দিষ্ট ব্যক্তিগত বিনিময়ের মাধ্যমে আগ্নেয়াস্ত্র কিনবে তাদের ব্যাকগ্রাউন্ড যাচাই আরও দীর্ঘ করা হয়েছে। এর মাধ্যমে বহুদিন ধরে চলা আইনের একটি ফাঁকা জায়গা পূরণ করা সম্ভব হচ্ছে। রিপাবলিকানদের মধ্য থেকে মাত্র আটজন এই বিলের পক্ষে ভোট দিয়েছেন।

আরেকটি বিল পাস হয়েছে ২১৯-২১০ ভোটে। এর ফলে একটি আগ্নেয়াস্ত্র লাইসেন্স করার আগে ফেডারেল ব্যাকগ্রাউন্ড যাচাইয়ের জন্য কর্তৃপক্ষ ১০ দিন সময় পাবে। বর্তমান আইনে ব্যাকগ্রাউন্ড যাচাইয়ের জন্য তিন দিন সময় রয়েছে এবং তা বেশ জটিল প্রক্রিয়া। তিন দিনের মধ্যে ব্যাকগ্রাউন্ড যাচাই করা সম্ভব না হলে অস্ত্র বিক্রি করে ফেলা যায়। এই বিলের পক্ষে ভোট দিয়েছেন মাত্র দু’জন রিপাবলিকান।

প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন অস্ত্র নিয়ন্ত্রণে দীর্ঘমেয়াদী প্রক্রিয়ার সমর্থক। আইনটি পাস করতে সিনেটে আরও কঠিন লড়াইয়ের মুখোমুখি হতে হবে বলে ধারণা করা হচ্ছে। কারণ, প্রতিনিধি পরিষদের চেয়ে সিনেটে ডেমোক্র্যাটদের সংখ্যাগরিষ্ঠতা কম।

গত কয়েক দশকে যুক্তরাষ্ট্রে অনেকগুলো মারাত্মক গোলাগুলির ঘটনা ঘটেছে। এতে নিহত হয়েছেন প্রচুর সংখ্যক মানুষ। দেশটিতে আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ন্ত্রণ বেশ বিবাদের একটি বিষয়। অধিকাংশ রিপাবলিকান সমর্থক আগ্নেয়াস্ত্র সংক্রান্ত বিধিনিষেধের ঘোর বিরোধী। যুক্তরাষ্ট্রের সংবিধানেও আগ্নেয়াস্ত্র রাখার অধিকার নিশ্চিত করা হয়েছে। তবে ডেমোক্র্যাটদের দাবি, আগ্নেয়াস্ত্র সংক্রান্ত সহিংসতা কমাতে নতুন আইন প্রণয়ন জরুরি।