নেপালে চারজাতি ফুটবল টুর্নামেন্টে আমন্ত্রিত বাংলাদেশ

মিরর স্পোর্টস : ২৫ মার্চ আফগানিস্তানের বিপক্ষে বাংলাদেশের বিশ্বকাপ বাছাইয়ের ম্যাচটি হচ্ছে নাকি হচ্ছে না? হ্যা বা না কিছুই বলেনি এএফসি। বাংলাদেশ অনড় নির্ধারিত সময়ে ম্যাচটি সিলেটে আয়োজন করতে। অন্যদিকে আফগানিস্তান না আসার সিদ্ধান্তে অটল।

গত সপ্তাহেই বিষয়টি ফয়সালা করার কথা ছিল এএফসির। পরে বাফুফেকে মেইলে জানিয়েছিল, কয়েকদিন সময় লাগবে। সে সময় এখনো হয়নি এশিয়ান ফুটবলের অভিভাবক সংস্থাটির।

দুই দলের অনড় অবস্থান, এএফসির সিদ্ধান্ত জানাতে কালক্ষেপণ, সবকিছুর যোগফল বলছে ম্যাচটি ২৫ মার্চ হচ্ছে না। না হলে ম্যাচ যে জুনে চলে যাবে এবং সেন্ট্রাল ভেন্যুতে হবে তা আগেই সিদ্ধান্ত নিয়ে রেখেছে এএফসি। ২৫ মার্চের পরিবর্তে ৩ জুন বাংলাদেশ-আফগানিস্তান ম্যাচটি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। সম্ভাব্য ভেন্যু দোহা।

আফগানিস্তানের বিপক্ষে মার্চে ম্যাচ না হলে বাংলাদেশ খেলবে নেপাল আয়োজিত চারজাতি টুর্নামেন্টে। মার্চে ঘরের মাঠে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে বিশ্বকাপ বাছাইয়ের যে ম্যাচ ছিল নেপালের, তা পিছিয়ে চলে গেছে জুনে। যে কারণে অল নেপাল ফুটবল অ্যাসোসিয়েশন মার্চের ফিফা উইন্ডোতে চারজাতি টুর্নামেন্ট আয়োজনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

করোনার মধ্যেই দেশটি বাংলাদেশে এসে দুই ম্যাচের বঙ্গবন্ধু ফিফা ফ্রেন্ডলি সিরিজ খেলে গেছে। এবার তারা বাংলাদেশকে পেতে চায় নিজেদের মাঠে। ইতিমধ্যে ওই টুর্নামেন্টে অংশ নিতে বাংলাদেশকে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। বাংলাদেশ না করবে কিভাবে?

কবে হবে টুর্নামেন্ট? ২১ থেকে ৩০ মার্চ ফিফা উইন্ডো আছে। এই সময়ের মধ্যে টুর্নামেন্ট আয়োজন করবে নেপাল। কাঠমান্ডু অথবা দেশটির দ্বিতীয় বড় শহর পোখারায় হবে এই টুর্নামেন্ট।

বাংলাদেশ ও নেপাল ছাড়া চারজাতি টুর্নামেন্টের অন্য দুটি দেশের একটি হবে আফ্রিকার, অন্যটি হতে পারে ওসেনিয়া অঞ্চলের। আফ্রিকার লাইবেরিয়া ও ওসেনিয়া অঞ্চলের তাহিতিকে টুর্নামেন্টে আমন্ত্রণ জানিয়েছে নেপাল।