যুক্তরাষ্ট্র তৃতীয় বিশ্বের দেশ! নতুন বিতর্কে ট্রাম্প

মিরর ডেস্ক : ক্ষোভ আর অভিমান ছিল। এবার হালকা মেজাজে রসিকতা করতে গিয়েও ভোটে কারচুপির অভিযোগ আনলেন বিদায়ী আমেরিকান প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। দাবি করলেন, তিনিই জিতেছেন ভোটে।

মঙ্গলবার ওভাল অফিসে দেশের সর্বোচ্চ নাগরিক সম্মান তুলে দিতে গিয়ে এমনকি অলিম্পিকে সোনাজয়ী দেশের কিংবদন্তি কুস্তিগীরকে বলে বসলেন, ‘আমার সাথে হবে নাকি একহাত? আমিও কিন্তু চ্যাম্পিয়ন! দু’বারের ভোটে ২-০ রেকর্ড আমার।’

অলিম্পিক ছাড়াও তিন বার করে অল-আমেরিকান এবং বিগ-এইট চ্যাম্পিয়নশিপ ও দু’বার এনসিএএ জেতা কুস্তিগীর ও কোচ ডান গ্যাবেলকে ‘প্রেসিডেন্সিয়াল মেডেল অব ফ্রিডম’ দেন ট্রাম্প। তারপর ওভাল অফিস থেকেই সাংবাদিক বৈঠক করতে গিয়ে স্বমেজাজে ফিরলেন ট্রাম্প।

জো বাইডেন শিবিরের বিরুদ্ধে ভোট চুরির অভিযোগ এনে তিনি দাবি করলেন, তাকে অন্যায়ভাবে হারানো হয়েছে। তার কথায়, যে ভয়ঙ্কর কারচুপি হয়েছে এবার, তাতে মনে হচ্ছে আমেরিকা কোনো তৃতীয় বিশ্বের দেশ। রিগিং আর রিগিং! ভোটে যে সব যন্ত্র ব্যবহার হয়েছে, কেউ জানে না সে সব কোথা থেকে এলো! ওরা ভুল করেছে, অথচ স্বীকার করছে না।’

ট্রাম্পের এই ‘তৃতীয় বিশ্ব’ মন্তব্য নিয়ে কাল থেকেই বিতর্ক শুরু হয়েছে দেশ জুড়ে। ডেমোক্র্যাটরা বলছেন, ক্ষমতার নেশায় এভাবে দেশকে খাটো করে ট্রাম্প আসলে নিজেই স্বরূপ চেনাচ্ছেন।