`ভাস্কর্য বাঁচিয়ে রাখে একটি জাতির ইতিহাস’-এমপি গোপাল

স্টাফ রিপোর্টার, দিনাজপুর : ভাস্কর্য বাঁচিয়ে রাখে একটি জাতির ইতিহাস এমন মন্তব্য করে দিনাজপুর-১ আসনের সংসদ সদস্য মনোরঞ্জন শীল গোপাল এমপি বলেছেন, যারা জাতির পিতার ভাস্কর্য নিয়ে অপব্যাখ্যা দেন তারা জাতির শান্তি বিনষ্ট করতে চায়। এরা জাতির শশ্রু। এই জঙ্গিবাদ ও সাম্প্রদায়িকতার ষড়যন্ত্রকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে প্রতিহত করতে হবে। আর বাংলাদেশে এ পর্যন্ত নির্মিত বঙ্গবন্ধুর মুর‌্যালের যদি কোন ক্ষতি হয় তাহলে তা সহ্য করা হবে না বরং শক্তহাতে প্রতিহত করা হবে।

আজ (১ ডিসেম্বর) মঙ্গলবার দুপুর সাড়ে ১২টায় দিনাজপুর প্রেসক্লাবের সামনে বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সিদ্ধান্ত অনুযায়ী দিনাজপুর জেলা শাখা কর্তৃক আয়োজিত ‘বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাস্কর্য নিয়ে কটুক্তি পূর্ণ বক্তব্য রাখায় মাওলানা মামুনুল হককে দ্রুত গ্রেফতার করে বিচারের আওতায় আনার দাবীতে ‘মানববন্ধনে’ প্রধান অতিথির বক্তব্যে এমপি গোপাল এসব কথা বলেন।

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেমোরিয়াল ট্রাস্ট কর্তৃক অনুমোদিত বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগ জেলা শাখা আহবায়ক মো. কামাল হোসেন এর সভাপতিত্বে ঘন্টাব্যাপী মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন কাহারোল উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মো. জাকির হোসেন, ইউনিয়ন বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগের রতন শর্মা। এসময় উপস্থিত ছিলেন বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগের জেলা শাখার যুগ্ম আহবায়ক মেহেদী হাসান, সৈনিক লীগের মো. নজরুল ইসলাম, রতন রায়, হুমায়ুন কবীর, প্রদীপ রায়সহ মহিলা আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ।

বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগ জেলা শাখা আহবায়ক মো. কামাল হোসেন বলেন, সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাস্কর্য নিয়ে কটুক্তিপূর্ণ বক্তব্য রাখেন কথিক মাওলানা মামুনুল হককে দ্রু গ্রেফতার করে বিচারের আওতায় আনতে হবে। বিএনপি জামায়াত মদতপুন্য উগ্র সাম্প্রদায়িক মৌলবাদী গোষ্ঠী ধর্মের অপব্যাখ্যা দিয়ে জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য নির্মানে বিরোধীতা করে জনমনে বিভ্রান্তির সৃষ্টি করছে। জাতি এদের ক্ষমা করবে না। স্বাধীনতা বিরোধীরা জাতির পিতার ভাস্কর্য নির্মানে বিরোধীতা করে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে এগিয়ে চলা বাংলাদেশের অগ্রযাত্রা ব্যাহত করতে চায়। পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে লক্ষ্য করলে দেখা যায় বিভিন্ন ভাস্কর্য ইতিহাসের সাক্ষী হয়ে দাঁড়িয়ে আছে।